সোমবার, ২৩ নভেম্বর ২০২০, ১০:২৯ পূর্বাহ্ন

উখিয়ার ফোর মার্ডার মামলা শিঘ্রী পিবিআই’কে হস্তান্তর করা হচ্ছে : এসপি মাসুদ

উখিয়া সংবাদ ডেস্ক :
  • আপডেট টাইম :: বৃহস্পতিবার, ১০ অক্টোবর, ২০১৯
  • ৪১

নিজস্ব প্রতিবেদক ::

উখিয়া উপজেলার রত্নাপালং ইউনিয়নের পূর্ব রত্নাপালং বড়ুয়াপাড়া গত ২৫ সেপ্টেম্বর দিবাগত রাতে সংগঠিত হওয়া চাঞ্চল্যকর ফোর মার্ডার হত্যাকান্ডের মামলা অধিকতর তদন্তের জন্য খুব শিঘ্রী পিবিআই (পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন) কে হস্তান্তর করা হচ্ছে। মামলাটি পিবিআই এর মাধ্যমে নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু তদন্ত করে প্রকৃত খুনীদের সনাক্ত করে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে। কক্সবাজারের পুলিশ সুপার এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম বৃহস্পতিবার ১০ অক্টোবর বিকেলে তাঁর কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে আসন্ন প্রবারণা পূর্ণিমা উপলক্ষে বৌদ্ধ ধর্মালম্বীদের সাথে আইনশৃংখলা সংক্রান্ত এক মতবিনিময় সভায় এ তথ্য জানান। বিশ্বস্ত সুত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এসপি এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম বলেন-যে দু’জনকে বুধবার গ্রেপ্তার করা হয়েছে, তাদেরকে দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ করে তারা ঘটনার সাথে জড়িত বলে, তাদের কথায় সন্দেহ করা হচ্ছে। এ পৈশাচিক হত্যাকান্ডটি পেশাদার খুনীদের দ্বারা ঘটানো হয়েছে বলে আমরা অনুমান করছি। এ হত্যাকান্ডে গ্রেপ্তারকৃত আসামীদ্বয় ছাড়াও আরো অপরাধী জড়িত থাকতে পারে বলে এসপি এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম ধারণা পোষন করেছেন। পিআইবি’র অধিকতর তদন্তে তা বের হয়ে আসতে পারে। এ মামলায় অযথা কাউকে হয়রানি করা হবেনা। রক্তের চাপ, ফিঙ্গারপ্রিন্ট, ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন ডিপার্টমেন্ট (সিআইডি) হতে ফরেনসিক প্রসেস ও ডিএনএ প্রোফাইলিং রিপোর্ট আসলে মামলার প্রকৃত রহস্য উদঘাটন করা আরো বেশী সহজ হবে বলে জানান তিনি। এসপি এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম এ বিষয়ে সকলকে একটু ধৈর্য ধরার জন্য অনুরোধ করেন।
প্রসংগত, উখিয়া উপজেলার রত্নাপালং ইউনিয়নের পূর্ব রত্নাপালং বড়ুয়া পাড়ায় গত ২৫ সেপ্টেম্বর দিবাগত রাতে ৪ জনকে জবাই করে হত্যার ঘটনায় ২ জনকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো-শিপু বড়ুয়ার স্ত্রী রিপু বড়ুয়া (২৮) ও অপরজন হলো রোমেল বড়ুয়ার পুত্র উজ্জ্বল বড়ুয়া (২৪)।
গ্রেপ্তারকৃত ২ জনই রোকেন বড়ুয়ার নিকটাত্মীয়। তারমধ্যে, রিপু বড়ুয়া হচ্ছে-প্রবাসী স্বজনহারা রোকেন বড়ুয়ার সেজ ভাই শিপু বড়ুয়ার স্ত্রী এবং ফোর মার্ডারে নিহত সনী বড়ুয়ার (৬) মা। অপর আসামি হলো রোকেন বড়ুয়ার ভাগ্নি জামাই উজ্জ্বল বড়ুয়া। উজ্জ্বল বড়ুয়ার বাড়ি রামু উপজেলার রাজারকুল ইউনিয়নের রামকোট এলাকায় অবস্থিত। উজ্জ্বল বড়ুয়াকে মঙ্গলবার ৮ অক্টোবর দিবাগত রাত সাড়ে ১০ টার দিকে তার শ্বশুরবাড়ি উখিয়া উপজেলার কুতুপালং থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। একই সময়ে রিপু বড়ুয়াকে তার স্বামীর বাড়ি পূর্ব রত্নাপালং এর বড়ুয়া পাড়া থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

উখিয়া উপজেলার রত্নাপালং ইউনিয়নের পূর্ব রত্নাপালং বড়ুয়া পাড়ায় প্রবাসী রোকেন বড়ুয়ার বাড়ীতে গত ২৫ সেপ্টেম্বর বুধবার দিবাগত রাত্রে রোকন বড়ুয়ার মা সুখী বালা বড়ুয়া (৬৫), সহধর্মিণী মিলা বড়ুয়া (২৫), একমাত্র পুত্র রবিন বড়ুয়া (৫) ও ভাইজি সনি বড়ুয়া (৬)কে কে বা কারা জবাই করে হত্যা করে। এরমধ্যে, নিহত রবিন বড়ুয়া রুমখা সয়েরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রাক প্রাথমিক শ্রেণির ছাত্র এবং সনি বড়ুয়া একই স্কুলের প্রথম শ্রেণির ছাত্রী ছিলো।

এবিষয়ে ২৬ সেপ্টেম্বর উখিয়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। মামলা নম্বর ৪৭/২০১৯, যার জিআর মামলা নম্বর : ৪৭৮/২০১৯ (উখিয়া) ধারা : ফৌজদারি দন্ড বিধি : ৩০২ ও ৩৪। মামলায় নিহত মিলা বড়ুয়ার পিতা ও রোকেন বড়ুয়ার শ্বশুর শশাংক বড়ুয়া বাদী হয়েছেন। মামলার এজাহারে সুনির্দিষ্ট কাউকে আসামী করা হয়নি, আসামী অজ্ঞাত হিসাবে এজাহারে উল্লেখ রয়েছে। মামলাটির তদন্তকারী কর্মকর্তা (আইও) হচ্ছেন-উখিয়া থানার ওসি (তদন্ত) নুরুল ইসলাম মজুমদার।

বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় অন্যান্যের মধ্যে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মোহাম্মদ ইকাবাল হোসাইন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) আদিবুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (উখিয়া সার্কেল) নিহাদ আদনান তাইয়ান, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (চকরিয়া সার্কেল) কাজী মতিউল ইসলাম, সহকারী পুলিশ সুপার (মহেশখালী) রতন বরণ দাশ গুপ্ত, সহকারী পুলিশ সুপার (ডিএসবি) শহীদুল ইসলাম, জেলার ৮ টি থানার ওসি বৃন্দ এবং বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দের মধ্যে সাবেক সংসদ সদস্য এথিন রাখাইন, বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের ভাইস চেয়ারম্যান সুপ্ত ভূষণ বড়ুয়া, বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের ট্রাস্টি এডভোকেট দীপংকর বড়ুয়া পিন্টু, আরআরকে এর চেয়ারম্যান বাবুল বড়ুয়া, রবিন্দ্র বিজয় বড়ুয়া, উখিয়া উপজেলার প্রতিনিধি মেধু বড়ুয়া, সদর উপজেলার প্রতিনিধি অমর বিন্দু বড়ুয়া, রামু সীমা বিহারের সাধারণ সম্পাদক রাজু বড়ুয়া, বৌদ্ধ সমিতির সাধারণ সম্পাদক জে.এম.সেন বড়ুয়া, বৌদ্ধ যুব ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক শিপন বড়ুয়া, সুরেশ বাঙ্গালী, আরকেকে এর অশোক বড়ুয়া সহ প্রায় অর্ধ্ব শত বৌদ্ধ ধর্মীয় নেতা উক্ত মতবিনিময় সভায় অংশ নেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2019 UkhiyaSangbad
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbaukhiyasa15