বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ০৫:২২ অপরাহ্ন

উখিয়ায় পুলিশ দেখে বিয়ের আসর থেকে পালিয়ে গেলো বর

নিজস্ব প্রতিবেদক :
  • আপডেট টাইম :: শনিবার, ২৫ জানুয়ারী, ২০২০
  • ১৩৩

পুলিশ দেখে উখিয়ায় বিয়ের আসর থেকে সাজানো কনে ফেলে পালিয়ে গেলো বাল্য বিয়ে করতে আসা এক বর। এ নিয়ে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

জানা যায়,শুত্রুবার বিয়ের কথা ছিল উখিয়া উপজেলার হলদিয়া পালং ইউনিয়নের নলবনিয়া গ্রামের জাফর আলমের নাবালিকা কন্যা সুজিনা আকতার (১৬) এর সাথে রামু উপজেলার খুনিয়াপালং ইউনিয়নের পূর্ব গোয়ালিয়া গ্রামের এরশাদ উল্লাহর পুত্র আব্দুল কাদেরের। যথারীতি বিয়ের দিন বরযাত্রা আসে কনের বাড়ীতে, রাতে খাওয়াদাওয়ার আয়োজন চলছিল। শুত্রুবার সন্ধ্যা ৬ টার দিকে হলদিয়া পালং ইউনিয়নের ইউপি সদস্য সরোয়ার বাদশার কাছে খবর আসে এলাকার বাল্য বিয়ে হচ্ছে। ইউপি সদস্য বাদশা বিষয়টি উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিকারুজ্জামান চৌধুরী ও উখিয়া সহকারী কমিশনার ভুমি আমিমুল এহসান খানকে অবহিত করেন। উপজেলা নির্বাহী উখিয়া থানার ওসি আবুল মনসুরকে জানালে দ্রুত ঘটনাস্থলে যায় পুলিশ। সন্ধ্যা ৭ টায় দিকে উখিয়া থানার এ এস আই শাহ আলমের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে বিয়ে করতে কনের বাড়ীতে আসা শেরওয়ানি পরিহিত বর আব্দুল কাদের (২৮) পিছন দিক দিয়ে দৌড়ে পালিয়ে যায়। বর পালিয়ে গেলেও বাল্য বিয়ে দেওয়ার অপরাধে কনের সাজে থাকা সুজিনা আকতার সহ তার পিতা-মাতাকে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ । পরে উখিয়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সহকারী কমিশনার ভুমি আমিনুল এহসান খানের কাছে হাজির করা হলে প্রাপ্তবয়স্ক  হওয়ার পূর্বে বিয়ে দেওয়া হবেনা মর্মে মেয়ের পিতা-মাতার কাছ থেকে মুসলেকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়। এ ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে সর্বত্র।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2019 UkhiyaSangbad
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbaukhiyasa15